জিতলেই সেমির টিকেট নিশ্চিত

0
47


জিতলেই সেমির টিকেট নিশ্চিত

বঙ্গবন্ধু গোল্ড কাপে রবিবার ‘এ’ গ্রুপের ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে খেলতে নামবে বাংলাদেশ। স্থানীয় সময় বিকেল ৫টায় শুরু হবে ম্যাচটি। আর আজকের ম্যাচটিতে লঙ্কানদের বিপক্ষে জয় তুলে নিতে পারলেই সেমিফাইনালের টিকেট নিশ্চিত হবে জামাল ভূঁইয়াদের। গ্রুপ পর্বে বাংলাদেশ তাদের প্রথম ম্যাচে  মুখোমুখি হয় গোল্ড কাপের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ফিলিস্তিনের বিপক্ষে। ম্যাচটিতে বাংলাদেশ হারে ২-০ গোলের ব্যবধানে। অন্যদিকে শ্রীলঙ্কাও তাদের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয় ফিলিস্তিনের বিপক্ষে। তারাও মধ্যপ্রাচ্যের দেশটির বিপক্ষে হারে ২-০ গোলের ব্যবধানে। ফলে আজকের ম্যাচটি শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের জন্য পরিণত হয়েছে সেমিফাইনাল নির্ধারণী ম্যাচ হিসেবে।

২০১৫ সাল থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত গোল্ড কাপের ৩টি আসর অনুষ্ঠিত হয়। এই ৩টি আসরের ৩টিতেই সেমিফাইনাল পর্যন্ত খেলেছিল লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। আর এবার সেমি নিশ্চিত করতে পারলে চতুর্থবারের মতো এই যোগ্যতা অর্জন করতে পারবে তারা। গোল্ড কাপে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ সাফল্য আসে ২০১৫ সালে। সে বছর প্রতিযোগিতাটির ফাইনালে খেলেছিল লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। কিন্তু ফাইনাল ম্যাচে মালয়েশিয়ার বিপক্ষে হেরে রানার্সআপের শিরোপা নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় বাংলাদেশকে। এরপর ২০১৬ ও ২০১৮ সালে আরো টানা ২ বার সেমিফাইনাল নিশ্চিত করলেও ফাইনাল পর্যন্ত পৌঁছাতে পারেনি জেমি ডের শিষ্যরা।

এদিকে রবিবারের প্রতিপক্ষ শ্রীলঙ্কা হওয়ায় বাংলাদেশ সেমির স্বপ্ন দেখতেই পারে। কারণ শক্তির বিচারে বাংলাদেশের চেয়ে অনেক পিছিয়ে আছে লঙ্কানরা। ফিফার সর্বশেষ প্রকাশিত র‌্যাঙ্কিং অনুযায়ী শ্রীলঙ্কা রয়েছে ২০৫ নম্বর অবস্থানে। যেখানে বাংলাদেশ রয়েছে ১৮৭ নম্বর স্থানে। এবারের বঙ্গবন্ধু গোল্ড কাপে অংশগ্রহণকারী ৬টি দলের মধ্যে সবচেয়ে পিছিয়ে আছে লঙ্কানরা।

বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার অতীত পরিসংখ্যান ঘাটলে দেখা যায় জয়ের পাল্লার ভারী দিকটা রয়েছে বাংলাদেশের দিকে। এখন পর্যন্ত লঙ্কানদের বিপক্ষে ১৬টি ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে বাংলাদেশ। এর মধ্যে জয় পেয়েছে ১০টি ম্যাচে। হেরেছে ৪টি ম্যাচে। আর ড্র করেছে ২টি ম্যাচ। তবে শঙ্কার কথা হলো লঙ্কানদের দুটো জয়ের দ্বিতীয়টি এসেছে দুদলের শেষ লড়াইয়ে। ২০১৮ সালে নীলফামারী স্টেডিয়ামে ফ্রেন্ডলি ম্যাচে লঙ্কানদের বিপক্ষে ১-০ গোলে হারতে হয়েছিল জেমি ডের শিষ্যদের। বাংলাদেশের বিপক্ষে লঙ্কানদের এই জয়টি এসেছিল প্রায় ৮ বছর পর। ফলে আজকের ম্যাচটি বাংলাদেশের জন্য সেমিফাইনালে ওঠার মিশন ও প্রতিশোধ নেয়ার মিশন। এখন আজ লঙ্কানদের বিপক্ষে ম্যাচটি জিততে পারলে সেমিফাইনাল নিশ্চিত ও প্রতিশোধ দুটোই হয়ে যাবে জামাল ভ‚ঁইয়াদের। আর যদি বাংলাদেশ হেরে যায় তা হলে সেটি হবে দেশীয় ফুটবলের জন্য চরম একটি দুঃসময়।

গত বছরের মাঝামাঝি সময় থেকে বেশ ভালোই ফুটবল খেলছিল বাংলাদেশ। বিশেষ করে বিশ^কাপ বাছাইয়ে জামাল ভ‚ঁইয়ারা তাদের পারফরমেন্স দিয়ে বেশ নজর কাড়েন। কিন্তু নেপালে অনুষ্ঠিত হওয়া এসএ গেমসে গিয়ে খেই হারিয়ে ফেলেন তারা। এসএ গেমসের পর গোল্ড কাপে খেলতে নেমেও হারের বৃত্ত থেকে বের হতে পারেনি জেমি ডের শিষ্যরা।



একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে